স্পেনে প্রতারণার অভিযোগে এক বাংলাদেশী গ্রেফতার

ঢাকা কেরাণীগঞ্জের বাসিন্দা লিটন আরিফুজ্জামানের (৪৪) বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে দীর্ঘ তদন্ত শেষে শুক্রবার তাকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানান পুলিশ কর্মকর্তারা।

দেশটির জাতীয় দৈনিক ‘উলতিমা ওরা’ শনিবার তাদের প্রিন্ট ও অনলাইন উভয় মাধ্যমে ছাপা হওয়া এক প্রতিবেদনে এ খবরটি প্রকাশ করে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘পুলিশের তদন্তে প্রমাণ পাওয়া গেছে যে অবৈধ শ্রমিকদের বৈধ করে দেওয়ার প্রলোভন দিয়ে বিনা পারিশ্রমিকে কাজে রেখে মানসিক নির্যাতন করতেন লিটন। অবৈধ বসবাসকারীদের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে কাজে রেখে ঘণ্টায় এক ইউরো থেকে দুই ইউরো হিসেবে বেতন দিতেন, অনেকের কাজের বেতন পরিশোধ করতেন না।’

পুলিশের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, ‘লিটন বহুদিন থেকে অবৈধ ব্যবসাসহ স্পেন সরকারকে কর ফাঁকি দিয়ে আসছেন। তিনি একজন মানব পাচারকারী। বাংলাদেশ থেকে বিভিন্ন দেশ ঘুরিয়ে অবৈধভাবে স্পেনে লোক নিয়ে আসতেন। তাদের কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা বৈধ করার কথা বলে নিতেন এবং সেই টাকা আত্মসাত করতেন।’